MOBILES LEAKSSmartphone News

১৫ হাজার টাকার মধ্যে নতুন গেমিং ফোন এলো

১৫ হাজার টাকার মধ্যে নতুন একটি কম দামে ভাল গেমিং ফোন এসে গেলো দেশের বাজারে

১৫ হাজার টাকার মধ্যে নতুন একটি কম দামে ভাল গেমিং ফোন এসে গেলো দেশের বাজারে। কথা বলছি ওয়ালটন এর প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটি নিয়ে। অন্যান্য ব্র্যান্ডগুলো যেখানে ফোনের দাম বাড়িয়েই চলেছে, সেখানে দেশী ব্র্যান্ড, ওয়ালটন এর সাশ্রয়ী মূল্যে প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটি স্বস্তির নিঃশ্বাস প্রদান করছে। চলুন বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটি সম্পর্কে বিস্তারিত।

ডিজাইন ও ডিসপ্লে

দামে কম হলেও ডিজাইনের দিক দিয়ে প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে কোনো কমতি রাখেনি ওয়ালটন। ফোনের ব্যাক বেশ সুন্দরভাবে কার্ভ করে ফোনের ফ্রন্টের সাথে মিলিয়ে নজরকাড়া একটি লুক দেওয়া হয়েছে ফোনটিতে যা সাধারণত প্রিমিয়াম ফোনগুলোতে দেখা যায়। ফোনের ব্যাকে ক্যামেরা কাটআউটে স্থান পেয়েছে তিনটি রিয়ার ক্যামেরা। অন্যদিকে ফোনের ফ্রন্টে পাঞ্চ-হোল ডিসপ্লেতে স্থান পেয়েছে ফোনের সেলফি ক্যামেরা। মোট কথায় দাম বিবেচনায় ডিজাইনের দিক দিয়ে যে কাউকে সন্তুষ্ট করবে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটি।

ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে ৬.৭৮ইঞ্চির পাঞ্চ-হোল ডিসপ্লে রয়েছে, যার রেজ্যুলেশন ফুলএইচডি প্লাস। ফোনটিতে হাই রিফ্রেশ রেট বা অ্যামোলেড ডিসপ্লে থাকছেনা। তবে ফোনটির দাম ও অন্যান্য ফিচার বিবেচনায় এই বিষয়টি নিয়ে সমালোচনা করার কিছুই নেই।

ক্যামেরা

ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটির ব্যাকে ৪৮মেগাপিক্সেল ট্রিপল ক্যামেরা সেটাপ রয়েছে। ৪৮মেগাপিক্সেল মেইন সেন্সরের পাশাপাশি ৫মেগাপিক্সেলের আলট্রা-ওয়াইড ক্যামেরা এবং ২মেগাপিক্সেলের ডেপথ সেন্সর রয়েছে। ফোনে ফ্রন্টে রয়েছে ৮মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। ফুল এইচডি রেজ্যুলেশনে ভিডিও করা যাবে ফোনের ব্যাক ও ফ্রন্ট ক্যামেরা দ্বারা। প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে রয়েছে পোর্ট্রেইট মোড, এআই ফেস লক, ডিজিটাল জুম, এইচডিআর, টাচ ফোকাস, টাচ ক্যাপচার, সেল্ফ-টাইমার, ভলিউম ক্যাপচার, এন্টি ফ্লিকার, শ্যুটিং মোড, প্রো মোড, নাইট মোড, প্যানারোমা, ইন্টেলিজেন্ট স্ক্যানিং এর মত প্রায় ডজনখানেক ফিচার।

পারফরম্যান্স

এবার আসি ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটির পারফরম্যান্স সেকশনে। ফোনটিতে অ্যান্ড্রয়েড ১১ এর দেখা মিলবে। প্রসেসর হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে মিডিয়াটেক এর হেলিও জি৮৫ প্রসেসর যা গেমিং এর জন্য বেশ শক্তিশালী বলে আমরা এতোদিন জেনে এসেছি। এই শক্তিশালী চিপসেট ও বিশাল ৬০০০মিলিএম্প ব্যাটারির কল্যাণে প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটি থেকে অনবদ্য গেমিং পারফরম্যান্স পাওয়া যাবে।

৪জিবি র‍্যাম ও ৬৪জিবি স্টোরেজ রয়েছে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে। এছাড়া ২৫৬জিবি পর্যন্ত মেমোরি কার্ড ব্যবহার করে স্টোরেজ বাড়িয়ে নেওয়ার সুযোগ তো থাকছেই।

ডুয়াল ব্যান্ড ওয়াইফাই, ব্লুটুথ ৫, ইউএসবি টাইপ-সি, ওটিজি, ইত্যাদি প্রয়োজনীয় ফিচারও রয়েছে প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে। আরো রয়েছে গ্র‍্যাভিটি (৩ডি টাচ), জাইরোস্কোপ, গেম রোটেশন ভেক্টর, নয়েস ক্যান্সেলেশন মাইক এর মত ফিচার যা গেমিংয়ে অন্য মাত্রা যোগ করবে। গেমারদের জন্য তৈরী ওয়ালটন এর এই ডিভাইসটিতে প্রয়োজনীয় ফিচারের পাশাপাশি অসংখ্য বাড়তি ফিচারও প্রদান করা হয়েছে।

অন্যান্য ফিচার

২০৬ গ্রাম ওজনের ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটিতে মাল্টি ফাংশনাল ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর রয়েছে। অর্থাৎ সাধারণ ফোন আনলক এর পাশাপাশি আরো বেশ কিছু এক্সট্রা ফিচার রয়েছে এই সেন্সর সম্পর্কিত। এছাড়া রয়েছে ডার্ক মোড, স্মার্ট টাচ, প্রেয়ার টাইমস, জেশ্চার নেভিগেশন, স্ক্রিন রেকর্ডার, ইত্যাদি কাজের ফিচার।

দাম

ফ্লুইচ এশ ও রিপল ব্লু, এই দুই কালারে পাওয়া যাবে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬। ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটির দাম ১৪,৯৯৯টাকা। তবে ফোনটি ওয়ালটনের ইকমার্স সাইট ওয়ালকার্টে ডিসকাউন্টের কারণে আরো কম দামে পেয়ে যেতে পারেন।

একনজরে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ এর স্পেসিফিকেশন

  • ডিসপ্লেঃ ৬.৭৮ইঞ্চি
  • প্রসেসরঃ মিডিয়াটেক হেলিও জি৮৫
  • র‍্যামঃ ৪জিবি
  • স্টোরেজঃ ৬৪জিবি
  • ফ্রন্ট ক্যামেরাঃ ৮মেগাপিক্সেল
  • ব্যাক ক্যামেরাঃ ৪৮মেগাপিক্সেল ট্রিপল ক্যামেরা
  • ব্যাটারিঃ ৬০০০মিলিএম্প
  • দামঃ ১৪,৯৯৯টাকা

ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ফোনটির বিশাল ব্যাটারি ও শক্তিশালী চিপসেট এর পাশাপাশি ৪৮মেগাপিক্সেল ক্যামেরা বেশ লোভনীয় একটি সেটাপ মনে হয়েছে আমাদের কাছে। বিশেষ করে যারা গেমিং এর জন্য কমদামের মধ্যে সুন্দর দেখতে দৈনিক ব্যবহারের জন্য কোনো ডিভাইসের খোঁজে থাকেন, তাহলে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬ ডিভাইসটি আপনার অবশ্যই পছন্দ হবে। আপনার কাছে কেমন লেগেছে ওয়ালটন প্রিমো এনএক্স৬, আমাদের জানাতে পারেন কমেন্ট সেকশনে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button