Tech

রবি গ্রাহকদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ নোটিশ – আপনার সিম বন্ধ হবে কিনা দেখুন

বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি) এর পলিসি অনুসারে ১৫ মাস বা ৪৫০ দিন ধরে অব্যবহৃত থাকা সকল রবি সিম রি-সাইকেল করা হবে। এগুলোর জন্য নির্দিষ্ট ক্ষেত্রে ৩০দিন বা ৯০দিনের নোটিশ প্রদান করা হবে। এর মধ্যে সিম একটিভ করা না হলে উক্ত সিম পুনরায় বিক্রির জন্য নির্বাচিত হবে। অর্থাৎ অব্যবহৃত এই সিম নতুন মালিকানার জন্য বিবেচ্য হবে।

বিটিআরসি এর নোটিশ অনুসারে যে সকল প্রি-পেইড রবি সিম ২০২০ সালের ১০ অক্টোবর মাসের আগে একটানা ৪৫০দিন অব্যবহৃত ছিলো, সেসব রবি সিম স্থায়ীভাবে ডি-রেজিস্টার করে দেওয়া হবে। তবে প্রদত্ত ৩০দিন বা ৯০দিনের মধ্যে রবি গ্রাহকগণ তাদের সিম নাম্বার ফিরে পাওয়ার একটি সুযোগ পাবেন।

২০১৬ সালের জুন মাসের ১ তারিখ এর আগে সর্বশেষ ব্যবহৃত রবি সিম গ্রাহকগণ ৩০দিনের নোটিশ পাবেন সিম বন্ধ হওয়ার আগে। বাকি সকল রবি গ্রাহক সিম বন্ধ হওয়ার আগে ৯০দিন সময় পাবেন নোটিশের মাধ্যমে।

রবি জানিয়েছে, এই নোটিস প্রতি মাসে তিনটি দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত হবে। কেননা সিম বন্ধ থাকলে তারা আপনাকে কল করে পাবেনা। আবার সিম খোলা থাকলে সেটি এই রিসাইকেলের জন্য প্রযোজ্য হবেনা। সুতরাং আপনার বন্ধ থাকা রবি সিম হারাতে না চাইলে আজই মেয়াদ চেক করুন এবং রিচার্জ করে সচল করে নিন!

আপনার পুরোনো কোনো নাম্বার রি-সাইকেল নাম্বার লিস্ট এর অন্তর্ভুক্ত কিনা তা জানতে পারবেন বেশ সহজে। রবি রি-সাইকেল নাম্বার চেক করতে প্রবেশ করুন এই ওয়েবসাইটে, এরপর খালি বক্সে রবি নাম্বার প্রদান করুন ও Check Now সিলেক্ট করুন।

আপনার নাম্বার যদি রি-সাইকেল লিস্ট এর আওতায় পড়ে তাহলে তা দেখতে পাবেন। আপনার রবি নাম্বার যদি রি-সাইকেল লিস্টের অন্তর্ভুক্ত না হয় তবে “Number not found in the recycle list” লেখা দেখতে পাবেন।

এছাড়া উক্ত লিংকে প্রবেশ করে একদম নিচের দিকে রি-সাইকেল করা হবে এমন সকল নাম্বার এর সকল এর তালিকা দেখতে পাবেন। প্রতিটি লিংকে ক্লিক করে আলাদাভাবে চেক করতে পারবেন আপনার নাম্বার রি-সাইকেল লিস্ট এর অন্তর্ভুক্ত কিনা। তবে সবচেয়ে সহজ হলো উপরোক্ত নিয়মে নাম্বার প্রদান করে সরাসরি চেক করা।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button