প্রশ্ন ও উত্তর

ভাষা ও ব্যাকরণ সম্পর্কিত প্রশ্ন ও উত্তর

ভাষা ও ব্যাকরণ সম্পর্কিত প্রশ্ন ও উত্তর (Language and Grammar related Question and Qnswer in Bengali/Bangla)

প্রশ্ন-১। ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ মানুষ যে অর্থবোধক ধ্বনির সাহায্যে তার মনের ভাব অন্যের নিকট প্রকাশ করে তাকে ভাষা বলে। যেমনঃ আমি স্কুলে যাই, আমি ভাত খাই, আমি ফুটবল খেলি ইত্যাদি।

প্রশ্ন-২। বাংলা ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ পৃথিবীর বাংলা ভাষাভাষী লোকেরা যে ভাষায় মনের ভাব প্রকাশ করে তাকে বাংলা ভাষা বলে।

প্রশ্ন-৩। মাতৃভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ মায়ের কাছ থেকে শেখা ভাষাকে মাতৃভাষা বলে।

প্রশ্ন-৪। ভাষা প্রধানত কত প্রকার ও কী কী?

উত্তরঃ ভাষা প্রধানত দুই প্রকার। যথা : (ক) কথ্য ভাষা বা মুখের ভাষা ও (খ) লেখ্য ভাষা বা লিখিত ভাষা।

প্রশ্ন-৫। কথ্য ভাষা বা মুখের ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ সাধারণত যে ভাষায় বিভিন্ন অঞ্চলের মানুষ কথা বলে তাকে কথ্য ভাষা বা মুখের ভাষা বলে।

প্রশ্ন-৬। কথ্য ভাষা বা মুখের ভাষা কত প্রকার ও কী কী?

উত্তরঃ কথ্য ভাষা বা মুখের ভাষা দুই প্রকার। যথাঃ (ক) আঞ্চলিক ভাষা ও (খ) সর্বজনীন ভাষা।

প্রশ্ন-৭। আঞ্চলিক ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ একই দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের মানুষ যে ভাষায় কথা বলে তাকে আঞ্চলিক ভাষা বলে।

প্রশ্ন-৮। সর্বজনীন ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ যে ভাষা একই দেশের সব অঞ্চলের সব শ্রেণীর মানুষ বুঝে তাকে সর্বজনীন ভাষা বলে।

প্রশ্ন-৯। লেখ্য ভাষা বা লিখিত ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ যে ভাষায় বই-পুস্তক, চিঠি-পত্র ইত্যাদি লেখা হয় তাকে লেখ্য ভাষা বা লিখিত ভাষা বলে।

প্রশ্ন-১০। লেখ্য ভাষা বা লিখিত ভাষা কত প্রকার ও কী কী?

উত্তরঃ লেখ্য ভাষা বা লিখিত ভাষা দুই প্রকার। যথাঃ (ক) সাধু ভাষা ও (খ) চলিত ভাষা।

প্রশ্ন-১১। সাধু ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ যে ভাষা যথাযথভাবে ব্যাকরণের নিয়ম-কানুন মেনে চলে, তাকে সাধু ভাষা বলে।

প্রশ্ন-১২। চলিত ভাষা কাকে বলে?

উত্তরঃ প্রতিদিন আমরা বিভিন্ন ক্ষেত্রে, কাজে-কর্মে, কথা-বার্তায় যে ভাষা ব্যবহার করে থাকি, তাকে চলিত ভাষা বলে।

প্রশ্ন-১৩। বর্তমানে পৃথিবীতে কয়টি ভাষা প্রচলিত আছে?

উত্তরঃ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বিভিন্ন রকমের ভাষা প্রচলিত আছে। এক এক দেশের মানুষ এক এক ভাষায় কথা বলে। বর্তমানে পৃথিবীতে প্রায় সাড়ে তিন হাজার ভাষা প্রচলিত আছে বলে অনুমান করা হয়। পৃথিবীর কয়েকটি প্রধান ভাষা হলো– বাংলা ভাষা, ইংরেজি ভাষা, আরবি ভাষা, হিন্দি ভাষা, চীনা ভাষা ইত্যাদি।

প্রশ্ন-১৪। ভারতীয় আর্য ভাষার তিনটি স্তর কি কি?

উত্তরঃ ভারতীয় আর্য ভাষার তিনটি স্তর হচ্ছে– প্রাচীন ভারতীয় আর্য ভাষা, মধ্য ভারতীয় আর্য ভাষা ও নব্য ভারতীয় আর্য ভাষা।

প্রশ্ন-১৫। ব্যাকরণ কি?

উত্তরঃ ব্যাকরণ হচ্ছে ভাষার নিয়ম-কানুন শেখার মাধ্যম। পৃথিবীর সব ভাষারই কতগুলো সুনির্দিষ্ট নিয়ম-কানুন আছে। ব্যাকরণ বইতে এই সব নিয়ম-কানুন লেখা থাকে।

প্রশ্ন-১৬। বাংলা ব্যাকরণ কাকে বলে?

উত্তরঃ বাংলা ভাষাকে শুদ্ধরূপে লিখতে, পড়তে ও বলতে যে নিয়ম-কানুনের প্রয়োজন হয় তাকে বাংলা ব্যাকরণ বলে।

প্রশ্ন-১৭। বাংলা ব্যাকরণের প্রধান আলোচ্য বিষয় কয়টি ও কি কি?

উত্তরঃ বাংলা ব্যাকরণের প্রধান আলোচ্য বিষয় চারটি। যথা : ১. ধ্বনিতত্ত্ব, ২. শব্দতত্ত্ব বা রূপতত্ত্ব, ৩. বাক্যতত্ত্ব বা পদক্রম ও ৪. অর্থতত্ত্ব।

প্রশ্ন-১৮। ব্যাকরণ পাঠের প্রয়োজনীয়তা কী?

উত্তরঃ ব্যাকরণ হচ্ছে ভাষা শেখার মাধ্যম। পৃথিবীর সব ভাষারই কতগুলো সুনির্দিষ্ট নিয়ম-কানুন রয়েছে। ভাষার এই নিয়মগুলো ব্যাকরণ বইতে লেখা থাকে। ভাষাকে শুদ্ধরূপে লিখতে, পড়তে ও বলতে ব্যাকরণ পাঠ অত্যন্ত জরুরী। ব্যাকরণ পাঠ ছাড়া ভাষা শুদ্ধরূপে লেখা, পড়া ও বলা সম্ভব নয়। তাই ভাষাকে ব্যাকরণের নিয়ম-কানুন অনুযায়ী শুদ্ধরূপে লেখা, পড়া ও বলার জন্য ব্যাকরণ পাঠের প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম।

বহুনির্বাচনি প্রশ্ন ও উত্তর (MCQ)

১। ‘ব্যাকরণ’ শব্দটির অর্থ?

ক) বিচার-বিশ্লেষণ

খ) ভাষার বিশ্লেষণ

গ) বিশেষভাবে বিশ্লেষণ

ঘ) ভাষার শৃঙ্খলা রক্ষা 

সঠিক উত্তর : গ

২। সন্ধি ব্যাকরণের কোন অংশের অন্তর্ভুক্ত?

ক) ধ্বনি তত্ত্বের      খ) শব্দ তত্ত্বের 

গ) রুপ তত্ত্বের        ঘ) বাক্য তত্ত্বের 

সঠিক উত্তর : ক

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button